বাসন্তী ৪ নম্বর মন্ডলের বিজেপির যুব মোর্চার সভাপতি সুব্রত কুমার গায়েনকে তৃণমূলের বেশ কিছু আশ্রিত দুষ্কৃতীরা মারধর করলে গুরুত্বর জখম হয়।ঘটনাটি ঘটে দক্ষিণ ২৪ পরগনার ঝড়খালি কোষ্টাল থানার নফরগঞ্জের কুমিরমারি বাজার এলাকায়|

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে নফরগঞ্জ এলাকার বাসিন্দা বাসন্তী ৪ নম্বর মন্ডলের যুব মোর্চার সভাপতি সুব্রত কুমার গায়েন এদিন টিউশনি থেকে ছেলেকে নিয়ে বাড়ি ফিরছিল।সেই সময় হঠাৎই কয়েক জন তৃণমূলের আশ্রিত দুষ্কৃতীরা লোহার রড দিয়ে বেধড়ক মারধর করে বলে অভিযোগ করেন আক্রান্ত বিজেপির যুব মোর্চার সভাপতি সুব্রত বাবু|

স্থানীয় মানুষজন বিষয়টি দেখতে পেয়ে জখমকে বিজেপি নেতা কে উদ্ধার করে বাসন্তী গ্রামীণ হাসপাতালে নিয়ে আসে।সেখানে তার অবস্থার অবনতি হলে চিকিৎসকরা তাকে ক্যানিং মহকুমা হাসপাতালে স্থানান্তরিত করে।সেখানেই তার চিকিৎসা চলছে। তড়িঘড়ি দেখতে গেলেন দক্ষিণ 24 পরগনার যুব সভাপতি রাজু মন্ডল ।

ক্যানিং মহাকুমার হাসপাতাল থেকে তৃণমূলের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দিলেন বললেন এখনো সময় আছে আপনার নিজেদের আক্রোশটা সংযত করুন । না হলে পরবর্তীকালে তার তিনগুণ অত্যাচার কিন্তু আপনাদের সইতে হবে । আজ বিজেপি কর্মীদের একটি করে চোখ তৃণমূলের আশ্রিত দুষ্কৃতীরা নষ্ট করছেন আগামী দিনে কিন্তু দুটো চোখ থাকবে না । চোখ থাকতে আপনার চোখের মর্ম বোঝেন না ।তাই চোখ রেখে আপনাদের দরকার নেই ।এ বিষয়ে থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়।

এদিকে এই ঘটনায় এলাকায় ব্যাপক উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে।দক্ষিণ ২৪ পরগনার পূর্ব জেলার সম্পাদক সঞ্জয় কুমার নায়েক বলেন তৃণমূলের বেশ কিছু আশ্রিত দুষ্কৃতী আক্রমণ করলে বাসন্তী ৪ নম্বর মন্ডলের বিজেপি যুব মোর্চার সভাপতি সুব্রত কুমার গায়েন গুরুত্বর জখম হয়।তার অপরাধ সে বিজেপি করে।এই ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ জানাচ্ছি।

এ বিষয়ে থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।এমনকি বিষয়টি রাজ্যস্তরের নেতৃত্বকে জানানো হয়েছে। এ বিষয়ে তৃণমূল নেতৃত্বের জানান সমস্ত ঘটনা মিথ্যা করে সাজানো হচ্ছে ।এই অন্যায়ের সঙ্গে তৃণমূলের কেউ যোগ নেই। বিজেপির গোষ্ঠী কোন্দল এর জন্য এমন ঘটনা ঘটেছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here