The party will eventually have four members, PC nephew Bobby Hakim and Prashant Kishore 1

নিজস্ব সংবাদদাতা:  আজ নিউটাউনের ইকোপার্কে প্রাতঃভ্রমনে আসেন রাজ্য বিজেপির সভাপতি দিলীপ ঘোষ আগামীকাল মেদিনীপুরে অমিত শাহের সভায় তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে যোগদান নিয়ে বলেন জয়েনিংয়ের লিস্ট আমার কাছে নেই। যারা জয়েন করবেন তাঁরা লিস্ট নিয়ে আসবেন।

তবে একটা বড় সংখ্যা এবং ভারী ভারী নেতারা জয়েন করবেন। কাল অবধি অপেক্ষা করুন। কিন্তু সভা হবে ঐতিহাসিক। এক লক্ষের বেশি লোক হবে। প্রধানমন্ত্রী সভার মতো ব্যাপক একটা সভা হবে। পুরো মেদিনীপুর হয়ত জ্যাম হয়ে যাবে। শয়ে শয়ে বাস আসবে। গাড়ি আসবে। এটা পরিবর্তনের ঢেউ লেগে গিয়েছে যেটা জঙ্গলমহল এবং মেদিনীপুর থেকে পরিবর্তন হবে।

ডায়মন্ড হারবার যাওয়ার পথে জেপি নাড্ডার কনভয়ে হামলার আশঙ্খা করেছিলেন। এবারো কি আশঙ্খা করছেন ? এর উত্তরে তিনি বলেন এখন তো আশঙ্খা উল্টো হয়ে গিয়েছে। আমাদের শঙ্খাও নেই আর আশঙ্খাও নেই। ইচ্ছাকৃতভাবে করা হয়েছিল। এটা উল্টো হয়ে গিয়েছে। ওদের পার্টি ভেঙে যাচ্ছে সেটা বোঝা যাচ্ছে।

এই ধরনের হিংসাত্মক রাজনীতি ভারতবর্ষে আর পশ্চিমবঙ্গে চলবে না। যারা করেছেন তারা আজকে ভেঙে টুকরো টুকরো হয়ে যাচ্ছে।

জিতেন্দ্র তিওয়ারি নিয়ে তিনি বলেন কালকে শুনছিলাম। টিভিতেও দেখছিলাম বহু জায়গায় পঞ্চায়েত থেকে পুরসভা থেকে রিজাইন করছে। এটা টিএমসি পার্টির ব্যাপার তারা বলছেন কিছু হবে না। কিছু যায় আসে না।

কিন্তু পার্টি বলে কিছু থাকবে কি আদৌ। এই পরিস্থিতি দাঁড়িয়েছে। পার্টিতে শেষ পর্যন্ত চারজন থাকবেন, পিসি ভাইপো ববি হাকিম আর প্রশান্ত কিশোর।

জিতেন্দ্র তিওয়ারি বিজেপিতে যাচ্ছেন এই জল্পনা উঠছে। এই নিয়ে তিনি বলেন অনেকেই রিজাইন করছেন। রিজাইন করছেন। অনেকেই বলছেন পার্টি ছেড়ে দেবেন। কে আসবেন না আসবেন আমিও জানি না সবার কথা। যারা আসছেন তারা ঠিক করছেন। তারা ঠিক করবেন। হয়ত কোনো না কোনো নেতার সঙ্গে যোগাযোগ করেছেন। আমার সঙ্গে যোগাযোগ করেননি।

কৈলাশ বিজয়বর্গীয় বলেছেন ৩৫৬ জারি ছাড়া এখানে নিউট্রাল ভোট করা সম্ভব নয়। আপনিও কি মনে করেন। এর উত্তরে তিনি বলেন এটা এক একজনের মত। এখানে যা হিংসা চলছে। তাতে তাঁর মনে হয়েছে। তাকে প্রোটেকশন বাড়াতে হচ্ছে। বুলেট প্রুফ গাড়ি নিতে হচ্ছে। রাষ্ট্রীয় নেতারাও এখানে সুরক্ষিত নন। আমি এখানে প্রথম থেকে লড়াই শুরু করেছি।

আমি কোনো সুরক্ষাও চাইনি। এই যে জঙ্গলরাজ চলছে জন জাগরণের মাধ্যমে এর পরিবর্তন করব। এই সংকল্প নিয়ে কাজ করছি। আজ আমাদের লড়াইটা সফল হয়েছে। সাধারণ মানুষজন বিজেপিতে আসছেন। যারা অত্যাচার করছে সেই পার্টির লোকেরা বিজেপিতে আসছেন।

ভারতবর্ষের এতো গুলো রাজ্যে বিজেপি ক্ষমতায় এসেছে সব জায়গায় গণতন্ত্রের মাধ্যমে এসেছে। এখানেও গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠার জন্য লড়াই। গণতন্ত্রের মাধ্যমে আমরা এখানে সরকার গঠন করব।

The party will eventually have four members, PC nephew Bobby Hakim and Prashant Kishore
জিতেন্দ্র তিওয়ারি বিজেপিতে যোগ মেনে নিতে পারব না ফেসবুকে পোস্ট করেছেন বাবুল সুপ্রিয়।

সেই নিয়ে দিলীপ ঘোষ বলেন জিতেন্দ্র তিওয়ারি সঙ্গে বাবুলদার যে ঝগরা। বাবুলদার ডেভলপমেন্ট এর কাজ জিতেন্দ্র তিওয়ারি আটকে দিয়েছেন যখন তিনি করপোরেশন এর চেয়ারম্যান ছিলেন এমএলএ ছিলেন জেলা প্রেসিডেন্ট ছিলেন তখন বিরোধিতা করেছেন।

এখন জিতেন্দ্র তিওয়ারি রিজাইন করছেন। পার্টিতে আসার সম্ভাবনা দেখা দিয়েছে তাই এটা ওনার প্রতিক্রিয়া ছিল। যাদের সঙ্গে এতো ঝগড়া হয়েছে তাদের সঙ্গে কাজ করতে সমস্যা হবে। আসানসোলে এবার উন্নয়ন হবে। ছ’মাস পর থেকে শুরু হবে।

অনুব্রত মন্ডল গতকাল তারাপীঠে পুজো দিয়েছেন। মা তাঁকে বলেছেন এবার ২২০ টা আসন বাঁধা। এই নিয়ে কটাক্ষর সুরে দিলীপ ঘোষ বলেন আমি জানি না ২২০টা আসন তিনি বিজেপির জন্য বলেছেন নাকি টিএমসির জন্য বলেছেন।

উনি বিজেপির জন্য বলেছেন হয়ত। কারন যেভাবে সবাই আসছেন। এবার ওনারও হয়ত লাইন লেগে যাবে। কে আসবেন আর কে আসবেন না বোঝা যাচ্ছে না। আপনারা যেভাবে খবর দিচ্ছেন আমরা তো বিশ্বাস করতে পারছি না।

অনুব্রত মন্ডলকে দলে নেবেন। এর উত্তরে তিনি বলেন দেখুন কাকে নেবো না নেবো সেটা আমি একা ঠিক করার লোক না। তিনি আমাকে তাঁর দলে আহবান করেছিলেন।

এখন ওই দলটা থাকলে তাহলে তো আহবান করবেন। জানি না উনি কোথায় যাবেন, কি করবেন আগামী দিনে দেখা যাবে। আসলে চাইলে পার্টি ভাববে।

এতো লোককে জায়গা দিচ্ছেন ওনাকে একটু জায়গা তো এক কোনে দিতেই পারি তাঁকে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here